তিনঘন্টা অপেক্ষা করেও টিসিবির পন্য কিনতে পারেনি প্রবাসির স্ত্রী অবশেষে ষ্ট্রোক করে হাসপাতালে

381

তিনঘন্টা অপেক্ষা করেও টিসিবির পন্য কিনতে পারেনি
প্রবাসির স্ত্রী অবশেষে ষ্ট্রোক করে হাসপাতালেএ

এস.এম রবি,
ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে টিসিবির পন্য কিনতে এসে ঘন্টার ঘন্টা অপেক্ষা করেও পন্য কিনতে পারেনি প্রবাসির স্ত্রী রুমা। অবশেষে প্রচন্ড গরম ও ভীড়ের চাপে তিনি ষ্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। রাত সাড়ে ৮ টা পর্যন্ত তার জ্ঞান ফিরে না আসায় আশংকাজনক অবস্থায় রুমা বেগমকে যশোর হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। অন্যদিকে ডিলারদের চরম অব্যাবস্থাপনার কারনে ভীড় সামলাতে পুলিশের হিমশিম খেতে হয়। মঙ্গলবার বিকাল ৫ টার দিকে কালীগঞ্জ খাদ্য গুদামে টিসিবি পন্য বিক্রয়কালে এই ঘটনা ঘটে। কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাঃ শিবলী জানায়, বিকালের দিকে রুমাকে অজ্ঞান অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। চিকিৎসা দেওয়ার পরও রাত ৮ টা পর্যন্ত জ্ঞান ফিরে না আসায় যশোর রেফার্ড করার প্রক্রিয়া চলছিল। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, কালীগঞ্জ খাদ্য গুদাম এলাকায় ৩ জন টিসিবির ডিলার পন্য বিক্রি করছিল। সেখানে প্রচন্ড ভীড়ে কোন শৃংখলা ছিল না। দুপুরের দিকে কালীগঞ্জ শহরের আড়পাড়া এলাকার এক প্রবাসীর স্ত্রী রুমা বেগম পন্য কিনতে আসেন। তিনি বেলা আড়াইটা থেকে ভীড়ের মধ্যে দাড়িয়ে ছিলেন। কিন্তু বেলা ৫ টা পযন্ত পন্য কিনতে ব্যর্থ হয়ে এক পর্ষায়ে প্রচন্ড গরম ও ভীড়ের চাপে হৃদরোগে আক্রান্ত হন। এ সময় উপস্থিত লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। কালীগঞ্জ খাদ্য গুদাম কর্মকর্তা নাইমুল হাসান জানান, রোববার সকাল থেকে সেতু ট্রেডার্স, সাদিয়া এন্টার প্রাইজ ও সুমি টেডাস নামে ৩ টি টিসিবির ডিলার পন্য বিক্রি শুরু করে। দুপুরের পর ভীড় বাড়তে থাকলে কিছুটা বিশৃঙ্খলা হয়। প্রচন্ড ভীড়ে এক মহিলা জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। কালীগঞ্জ থানার অফিসার্স ইনচার্জ আব্দুর রহিম মোল্ল্যা জানান, ভীড় সামলাতে পুলিশকে হিমশিম খেতে হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here